• E-paper
  • English Version
  • শুক্রবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৫:২০ অপরাহ্ন

অবিবাহিত নারী-পুরুষদের একসঙ্গে থাকার অনুমতি দিল সৌদি

  • আপডেট টাইম : রবিবার, ৬ অক্টোবর, ২০১৯
  • ১১০ বার পঠিত

এতদিন বিবাহবহিভূর্ত স’ম্পর্কে আবদ্ধ কোনো নারী-পুরুষ সৌদি আরবের একসঙ্গে হোটেলে থাকতে পারত না। তবে রক্ষণশীল দেশটির সংস্কার কর্মসূচির অংশ হিসেবে এবার স’ম্পর্কের প্রমাণ দেখনো ছাড়াই যে কোনো নারী-পুরুষ হোটেলে রাত যাপন করতে পারবেন।

পর্যট’কদের আকৃষ্ট করতে সৌদি আরব প্রথমবারের মতো ট্যুরিস্ট ভিসা দেয়ার ঘোষণা দিয়েছে। সে ঘোষণা আসার পরপরই হোটেলে বিদেশি নারী-পুরুষ একসঙ্গে থাকার স্বীকৃতি দিল দেশটি। এমনকি সৌদির নারীরাও হোটেল কক্ষ ভাড়া নিতে পারবেন।

যুবরাজ সালমানের নেতৃত্বাধীন রক্ষণশীল সৌদির এমন পদক্ষেপ দেশটিতে একাকী’ নারী ও বিবাহবহির্ভূত স’ম্পর্কে নারী-পুরুষের দেশটিতে ভ্রমণের পথ আরও সহ’জ হলো। তবে রাজতন্ত্র শাসনাধীন সৌদি আরবে বিহাবহির্ভূত যৌ’ন স’ম্পর্ক নিষিদ্ধ।

সৌদির পর্যটন ও জাতীয় ঐতিহ্যবিষয়ক কমিশন এ খবরের সত্যতা নিশ্চিত করে বলেছে, প্রত্যেক সৌদি নাগরিককে তার পারিবারিক পরিচয়পত্র ও স’ম্পর্কের প্রমাণ দেখিয়ে হোটেলে উঠতে হবে। তবে বিদেশি পর্যট’কদের জন্য এ নিয়ম প্রযোজ্য নয়। স’ম্পর্কের কোনো প্রমাণ ছাড়াই তারা হোটেলে থাকতে পারবে।

গত সপ্তাহে সৌদি আরব ঘোষণা দেয়, ৪৯টি দেশের পর্যট’কদের সৌদি ভ্রমণের জন্য ট্যুরিস্ট ভিসা দেয়া হবে। অর্থনীতির মূল খাত হিসেবে পরিচিত তেল শিল্প থেকে চাপ কমাতে এবং পর্যটন খাতের উন্নয়নে দেশটি প্রথমবারের মতো এমন ঘোষণা দেয়।

নারীরা গাড়ি চালাতে পারবে না। এতদিন এটাই ছিল সৌদির আইন। কিন্তু গত বছর বহুল সমালোচিত সেই আইন বাতিল করা হয়। এ ছাড়া আগে পরিবারের পুরুষ অ’ভিভাবকের অনুমতি ছাড়া কোনো নারী অন্য দেশে ভ্রমণে যেতে পারত না। সেটাও শিথিল করা হয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..